গ্রাহকদের দেওয়া গুগলের বিভিন্ন পরিষেবার মধ্যে Google Drive gdrive ) হলো অন্যতম। Google Drive হল গুগলের একটি বিশ্বস্ত প্রোডাক্ট। এর মাধ্যমে গ্রাহকরা বিভিন্ন ধরনের কার্য সম্পাদন করে থাকে। গুগোল ড্রাইভ 24 এপ্রিল 2012 সালে  প্রাথমিকভাবে লঞ্চ করা হয়। 2018  সালের জুলাই মাস অনুযায়ী  এর ব্যবহারকারী সংখ্যা 1 বিলিয়নেরও বেশি। 

মূলত Google Drive এর মধ্যে খুব সহজেই সর্বোচ্চ নিরাপত্তা দিয়ে কোন একটি ফাইল বা ডকুমেন্ট খুব সহজেই সংরক্ষণ করে রাখা যায়। আমাদের মোবাইল বা মেমোরিতে যেমন করে 8 GB, 16 GB, 32 GB করে ROM থাকে ঠিক তার মত করে গুগোল ড্রাইভ এর মধ্যে গুগোল সম্পূর্ণ ফ্রিতে 15 জিবি তাদের গ্রাহকদের দিচ্ছে। 

গুগোল ড্রাইভ ব্যবহারের ফলে আপনার তথ্য চুরি হওয়ার সম্ভাবনা কম থাকে, এবং মোবাইল বা কম্পিউটার চুরি হয়ে গেলেও তথ্য আপনার কাছেই রয়ে যাবে। তাই আজকের এই টপিকে কিভাবে Google Drive এর মধ্যে ফাইল সংরক্ষণ করবেন সে বিষয় নিয়ে আলোচনা করব।

গুগল ড্রাইভে সংরক্ষণ করার সুবিধা

কোন একটি তথ্য গুরুত্বপূর্ণ সংরক্ষণের জন্য দরকার পরে সর্বোচ্চ গোপনীয়তা সম্পন্ন একটি জায়গা। আর Google Drive এর মধ্যে রয়েছে গুগলের সর্বোচ্চ সিকিউরিটি যা আপনার ডাটার সর্বোচ্চ গোপনীয়তা রক্ষায় কাজ করবে।

এছাড়াও গুগল ড্রাইভ ব্যবহারের আরো বিভিন্ন ধরনের সুবিধা রয়েছে। নিচে গুগোল ড্রাইভ ব্যবহারের  কিছু সুবিধা সমূহ দেওয়া হল: 
  • ডাটার সর্বোচ্চ গোপনীয়তা বজায় থাকে।
  • মোবাইল বা ডেস্কটপ চুরি হলেও তথ্য নিজের কাছেই  রয়ে যায়।
  • মোবাইলের Rom কম লাগে,  এতে করে মোবাইল ফাস্ট কাজ করে।
  • সম্পূর্ণ ফ্রি তে 15 জিবি স্পেস পাচ্ছেন।
এছাড়াও গুগোল ড্রাইভ ব্যবহারের আরো অনেক সুবিধা রয়েছে। আপনি যখন এটি ব্যবহার করবেন টিক তখনই এর সুবিধা সমূহ উপলব্ধি করতে পারবেন।
11111

গুগল ড্রাইভে সংরক্ষণ করার অসুবিধা

কোন একটি ফাইল বা ডকুমেন্ট Google Drive এরমধ্যে সংরক্ষণ করে রাখার তেমন কোনো অসুবিধা নেই। তবে এ ক্ষেত্রে একটি কথা হচ্ছে- গুগোল ড্রাইভ এর মধ্যে কোন একটি ফাইল সংরক্ষণ বা সেভ করার জন্য অথবা সেভ করার পর দেখার বা ডাউনলোড করার জন্য  আপনার মোবাইলে বা কম্পিউটারে ইন্টারনেট কানেকশন থাকতে হবে।

ইন্টারনেট কানেকশন ছাড়া আপনি গুগোল ড্রাইভ এর মধ্যে কোন তথ্য সংরক্ষন করতে পারবেন না অথবা কোন তথ্য ডাউনলোড করে দেখতেও পারবেন না। তাই বলা যায় যে, এখানে শুধুমাত্র ইন্টারনেট কানেকশনের একটি অসুবিধা রয়েছে।

Google Drive ব্যবহার করতে কি লাগে?

গুগোল ড্রাইভ ব্যবহার করতে গেলে তেমন কোনো কিছুরই প্রয়োজন পরে না।প্রয়োজন পরে শুধুমাত্র Gmail একাউন্টের আর ইন্টারনেটের । Gmail হল গুগল এর আরেকটি বিশ্বস্ত প্রোডাক্ট।

আপনার যদি একটির বেশি Gmail Account থাকে তাহলে প্রতিটি Gmail একাউন্টের জন্য আপনি গুগল থেকে 15 GB করে গুগোল ড্রাইভ এর স্পেস ফ্রীতে পাবেন এবং তা আপনার কাজের জন্য ব্যবহার করতে পারবেন। 

এছাড়াও গুগল ড্রাইভে আনলিমিটেড স্টোরেজ ফ্রিতে পাওয়া যায় এই সম্পর্কে বিস্তারিত পড়ুন: গুগোল ড্রাইভ আনলিমিটেড স্টোরেজ

ড্রাইভে ফাইল সংরক্ষণ করবেন যেভাবে



গুগল ড্রাইভে ফাইল সংরক্ষণ করতে গেলে সবার প্রথমে আপনার ফোনের বা ডেক্সটপের যে কোন একটি ব্রাউজার এ চলে যান। ব্রাউজার এ গিয়ে Google Drive  লিখে সার্চ করুন এবং গুগোল ড্রাইভ এর অফিসিয়াল ওয়েবসাইট- https://www.google.com/drive  এটিতে প্রবেশ করুন।

আপনি যদি মোবাইল ব্যবহারকারী হয়ে থাকেন সেক্ষেত্রে গুগোল বা প্লে স্টোর থেকে Google Drive অ্যাপ্লিকেশনটি মোবাইলে ইন্সটল করে নেবেন। এক্ষেত্রে মোবাইল ব্যবহারকারীরা খুব সহজেই যেকোন ফাইল গুগোল ড্রাইভ মধ্যে সহজে আপলোড দিতে ও সংরক্ষণ করতে পারবেন। 

ডেক্সটপ ব্যবহারকারীদের জন্যও গুগোল ড্রাইভ এর সফটওয়্যার রয়েছে আপনারা চাইলে সফটওয়্যার ইন্সটল করে সেটি ব্যবহার করতে পারেন।তবে মোবাইল এবং ডেক্সটপ এ ফাইল সংরক্ষণের নিয়ম একই রকম। 

ওয়েব সাইটটিতে প্রবেশ করার পর নিচের পদক্ষেপগুলো অনুসরণ করুন:

1.প্রবেশের পর নিচের ইন্টারফেসটি দেখতে পারবেন এবং সেখান থেকে " Go To Drive " এই অপশনটিতে ক্লিক করুন। 

Google Drive এ ফাইল সংরক্ষণ


আপনার Gmail Account যদি লগইন না থাকে তাহলে আপনাকে gmail sign in করতে বলবে এবং " gmail sign in " করে নিবেন। 
11111
2. তারপর আপনি আপনার সামনে নিচের ইন্টারফেসটি দেখতে পাবেন সেখান থেকে বাম পাশের উপরে + চিহ্নের মত "New" লেখা একটি আইকন দেখতে পারবেন সেখানে ক্লিক করুন। 
Google Drive এ ফাইল সংরক্ষণ

আপনি যদি মোবাইলের ড্রাইভ অ্যাপ্লিকেশনটি ব্যবহার করেন তাহলে হাতের ডান দিকে নিচে  এই আইকনটি দেখতে পারবেন। 

3. "Newঅপশনটিতে ক্লিক করার পর আরো অনেকগুলো নতুন অপশন দেখতে পারবেন যেখানে, "File Upload" নামক একটি অপশন রয়েছে। সেই অপশনটিতে  ক্লিক করে আপনি আপনার পছন্দের যেকোনো ফাইল এখানে আপলোড করে সংরক্ষণ করে রাখতে পারবেন

এভাবে আপনি আপনার পছন্দের ছবি,ভিডিও,অডিও সহ খুব সহজেই যেকোন ফাইল গুগল ড্রাইভে সংরক্ষণ করে রাখতে পারবেন। 

Post a Comment

ব্যাকলিংক পাওয়ার উদ্দেশ্য নিয়ে ইরিলেভেন্ট লিংক শেয়ার করার চেষ্টা করবেন না । স্পামিং করা থেকে বিরত থাকুন । আপনার লিংকটি যুক্তিসঙ্গত না হলে সেটি অ্যাপ্রুভ করা হবে না ।

নবীনতর পূর্বতন