পার্ট টাইম জব হিসেবে ইউটিউব একটি অন্যতম প্ল্যাটফর্ম। আপনি যদি ইউটিউবে সঠিকভাবে কাজ করেন তাহলে আপনার জন্য ইউটিউব হবে পার্ট টাইম হিসেবে বেশ ভালো একটি জব। আপনি যদি ইউটিউবে আসতে চান অথবা অন্যের ইউটিউবে আছেন তাহলে এই আর্টিকেলটি আপনার জন্য অনেক উপকারে আসবে।

কেন আমি ইউটিউবকে বেশ ভালো একটি পার্ট টাইম চাকরি হিসেবে বেছে প্রথমে রেখেছি? অন্য কোন জবের কথা কেন উল্লেখ করিনি?এসকল বিষয় নিয়ে নিয়ে এই আর্টিকেলটিতে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে


ভালো পার্ট টাইম জব


পার্ট টাইম জব


ইউটিউব প্ল্যাটফর্মকে পার্ট টাইম জব হিসেবে  সবার আগে রাখার পেছনে অনেক কারণ রয়েছে। এ সম্পর্কে যথাযথ যুক্তি রয়েছে।তাই বিস্তারিত জানতে নিচের সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি মনোযোগ সহকারে পড়ুন।

ইউটিউবে যথেষ্ট স্বাধীনতা রয়েছে 


ইউটিউবারদের রয়েছে নিজস্ব স্বাধীনতাএখানে একজন ব্যক্তি নিজের ইচ্ছামত অবসর সময়ে কাজ সম্পাদন করতে পারেন। ব্যক্তি তার পছন্দমতো যেকোনো বেছে নিয়ে আর নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেলের ভিডিও আপলোড করতে পারেন।আর এই রকম স্বাধীনতা অন্য কোন পার্টটাইম চাকরির ক্ষেত্রে সাধারণত দেখা যায় না।


ইউটিউব হল যে কারো জন্য অনেক স্বাধীনতার ওআরামদায়ক একটি জব।কারণ আপনি যদি অন্য কোন একটি প্রতিষ্ঠান এর মধ্যে অথবা কোম্পানিতে টাইম হিসেবে জব করতে চান তাহলে সেখানে আপনাকে একটি নির্দিষ্ট টার্গেট কমপ্লিট করতে হবে, তাছাড়া জবাবদিহিতা করতে হবে এবং আপনাকে নানান রকমের কথাও শুনতে হতে পারে। আর এটির বিবেচনায় ইউটিউব হলো তার ঠিক উল্টো। এখানে আপনি আপনার পছন্দমত যেকোনো অবসর সময়ে কাজ করতে পারবেন।


ইউটিউব চ্যানেল থেকে মাস শেষে আপনার ভিডিও থেকে যে পরিমাণ টাকা আয় হবে তা গুগোল অ্যাডসেন্সে এরমধ্যে যুক্ত হবে। তারপর গুগল এডসেন্স এর টাকা নির্ধারিত সময়ের মধ্যে আপনার ব্যাংক একাউন্টে ট্রানস্ফার করে দেওয়া হবে।


প্রত্যেক সময় প্রমোশন হয়

ইউটিউব এর মধ্যে প্রতিনিয়ত ইউটিউব এর ভিডিও গুলো প্রমোশন হতে থাকে।এখানে আপনি যখন আজকে একটি ভিডিও পাবলিশ করবেন আবার এর পরের দিন আরেকটি ভিডিও পাবলিশ করবেন এভাবে চলতে চলতে একসময় আপনার চ্যানেল বড় হবে। এবং আপনার ভিডিও সংখ্যা বাড়তে থাকবে।আর ভিডিও এর সংখ্যা যত বাড়বে আপনার ভিডিওর ভিউজও তত বাড়তে থাকবে।


ইউটিউবে যদি আপনি নিয়মিত নতুন নতুন ভিডিও আপলোড করেন তাহলে প্রতিনিয়তই আপনার ভিউয়ারস বাড়বে। আমার যদি কখনো আপনি কোন একটি ভিডিও মোটামুটি ভাইরাল হয়ে যায় তাহলে সেই ভিডিও থেকে যে কি পরিমান টাকা আসবে তা আপনি ধারণাও করতে পারবেন না।এক্ষেত্রে ইউটিউব একটি বেস্ট পার্ট টাইম জব


মানুষ আপনাকে চিনবে


আপনি এখানে ফ্রেম পাবেন অর্থাৎ মানুষ আপনাকে চিনবে। আপনি যদি একবার সবার কাছে সঠিকভাবে পরিচিত হতে পারেন, ভালো একজন মানুষ হিসেবে পরিচিত হতে পারেন তাহলে আপনার টাকা সবদিক থেকেই আসবে। 

ইউটিউবে আপনি যদি নিজের অবস্থান তৈরি করে নিতে পারেন অথবা মোটামুটি পরিচিতি লাভ করতে পারেন তাহলে আপনাকে বিভিন্ন স্পন্সর এর জন্য ডাকতে পারে, বিভিন্ন ধরনের অ্যাডভার্টাইজমেন্ট করার জন্য ডাকতে পারে।তবে এক্ষেত্রে আপনাকে মোটামুটি জনপ্রিয় হতে হবে।


এমন অনেক ইউটিউবার রয়েছেন যারা মোটামুটি পপুলার হওয়ার পরে বিভিন্ন কোম্পানি তাদেরকে অ্যাডভার্টাইজমেন্ট এর জন্য হায়ার করে নিয়েছে।আবার এমন অনেক রয়েছেন যারা ইউটিউব থেকে টিভিতে পর্যন্ত নাটক করার চান্স পেয়ে গিয়েছে।


আপনার জ্ঞান বৃদ্ধি পাবে


ইউটিউব এ আসার পর আপনার জ্ঞান ধীরে ধীরে বৃদ্ধি পেতে থাকবে।এই পয়েন্টে হচ্ছে সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ এবং সবথেকে বড় একটি পয়েন্ট। আপনি যখন কোন একটি বিষয়ের উপর ভিডিও তৈরি করবেন তখন সেই বিষয় নিয়ে আপনাকে অনেক রিসার্চ করতে হবে।


যারা আমার মত বইয়ের পড়াশোনা পছন্দ করেন না ইউটিউবে আসতে পারেন। যে বিষয় নিয়ে আপনার ভিডিও তৈরি করবেন সেই বিষয়ের উপর বিভিন্ন টিউটিরিয়াল আপনাকে দেখতে হবে। এতে আপনার ভিতরে জ্ঞান বৃদ্ধি পাবে এবং পড়াশোনা করতে অনেকটা ভালো লাগবে। 


যখন আপনি নিজের জন্য ইউটিউবে ভিডিও তৈরি করবেন তখন আপনার মধ্যে অটোমেটিক নিয়ে একটি  ভালোলাগা তৈরি হবে এবং আপনি  আপনার জ্ঞানকে অনেক বেশি পরিমাণে বাড়িয়ে নিতে পারবেন। আবার আপনার পড়াশুনা করতেও অনেক বেশী ভালো লাগবে।


ইউটিউবে ঢুকতে হলে আপনাকে অবশ্যই জ্ঞান নিয়ে ঢুকতে হবে। আর যদি  আপনি যে বিষয় নিয়ে ভিডিও তৈরি করতে চান সে বিষয়ে যদি জ্ঞান না থাকে  তাহলে আপনাকে সে বিষয়ের উপরে অবশ্যই জ্ঞান অর্জন করে নিতে হবে।


শুধুমাত্র উপরে কয়েকটি বিষয় ছাড়াও আরো বিভিন্ন কারণে  আপনি সবার থেকে এগিয়ে থাকবেন। যেমন ধরুন- অন্য কোন কোম্পানিতে চাকরির ক্ষেত্রে কোম্পানি আপনাকে হায়ার করতে পারে,  যে কোন সমস্যায় পড়লে সহজে সাপোর্ট পাবেন, ক্যামেরার সামনে আরামদায়ক ভাবে কথা বলতে পারবেন।

সকল বিষয় বিবেচনা করে বলতে পারি যে, ইউটিউব হচ্ছে সবথেকে ভালো পার্ট টাইম জব। বাকিটা আপনার মতামতের উপর নির্ভর করে।

Post a Comment

ব্যাকলিংক পাওয়ার উদ্দেশ্য নিয়ে ইরিলেভেন্ট লিংক শেয়ার করার চেষ্টা করবেন না । স্পামিং করা থেকে বিরত থাকুন । আপনার লিংকটি যুক্তিসঙ্গত না হলে সেটি অ্যাপ্রুভ করা হবে না ।

নবীনতর পূর্বতন