বাংলাদেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের কারিকুলাম অনুযায়ী প্রতিটি বিদ্যালয়ে নবম থেকে দশম শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের জন্য তিনটি গ্রুপ বা বিভাগ বরাদ্দ থাকে। প্রতিটি শিক্ষার্থীকে অষ্টম শ্রেণি শেষে নবম-দশম শ্রেণীতে ওঠার পর বিভাগ নির্ধারণ করতে হয়।

এক্ষেত্রে মোট তিনটি বিভাগ রয়েছে। আর এই বিভাগ গুলো হল-মানবিক বিভাগ, ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগ এবং অপরটি হল বিজ্ঞান বিভাগ। শিক্ষার্থীরা তাদের পছন্দক্রম অনুযায়ী বিভাগ নির্ধারণ করে পড়াশোনা শুরু করেন। 

Siraj uddin sarker vidyaniketan and college

তবে বর্তমানে নতুন কারিকুলামে নবম-দশম শ্রেণিতে মানবিক বিভাগ, ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগ এবং বিজ্ঞান বিভাগ থাকছে না, হবে সমন্বিত কারিকুলাম।আর এই পদক্ষেপটি কার্যকর করা হবে ২০২২ সালে। বাংলাদেশের বর্তমান শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি জাতীয় সংসদের অধিবেশনে এমনটিই জানিয়েছেন ।

আজ বৃহস্পতিবার- 19 নভেম্বর 2020 তারিখে একাদশ জাতীয় সংসদের দশম অধিবেশনে (মুজিববর্ষ উপলক্ষে বিশেষ) শিক্ষামন্ত্রী এ কথা জানান রাতে বক্তব্য দেওয়ার সময়।

এছাড়াও এই অধিবেশনে শিক্ষামন্ত্রী ডাক্তার দীপু মনি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা সম্পর্কে বক্তব্য রাখেন। এ সম্পর্কে তিনি বলেছেন খুব সহজে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা হচ্ছে না। তবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান না খুলে অন্যান্য বিকল্প রকম পদ্ধতিতে তান কার্যক্রম চালিয়ে  আমার কথা চিন্তা করছেন।

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেন, সারা বিশ্বে বর্তমানে চলমান করোনা মহামারীর কারণে শিক্ষা খাতসমূহ নানা ধরনের ঝুঁকি বা বিপদের মুখে পড়েছে। অনেক সময় ধরে আমাদের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো  খোলা যাচ্ছে না বন্ধ রয়েছে। 

যে সকল কারণে শিক্ষার্থীদের ঝরে পাড়ার বিভিন্ন ধরনের সম্ভাবনা রয়েছে। আর এই সকল কারণে আমাদের দেশে বাল্যবিবাহ ও শিশুশ্রম বৃদ্ধি পেতে পারে। আমাদের অনেক শিক্ষার্থী আর্থিকভাবে ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে। মানসম্মত শিক্ষা অর্জন বাধাগ্রস্ত হচ্ছে।

Post a Comment

ব্যাকলিংক পাওয়ার উদ্দেশ্য নিয়ে ইরিলেভেন্ট লিংক শেয়ার করার চেষ্টা করবেন না । স্পামিং করা থেকে বিরত থাকুন । আপনার লিংকটি যুক্তিসঙ্গত না হলে সেটি অ্যাপ্রুভ করা হবে না ।

অপেক্ষাকৃত নতুন পুরনো